top-ad
২১শে জুন, ২০২৪, ৮ই আষাঢ়, ১৪৩১
banner
২১শে জুন, ২০২৪
৮ই আষাঢ়, ১৪৩১

বিএনপিকে বিদেশি কেউ মদদ দেবে এমন পরিস্থিতি নেই: কাদের

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহণ ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, বাইরে থেকে এসে কেউ বিএনপিকে মদদ দেবে, চাঙা করবে-এমন পরিস্থিতি নেই। যারা দাপট দেখাবে, তাদের ক্ষমতা মধ্যপ্রাচ্যেই সংকুচিত হয়ে আছে। সোমবার রাজধানীর ধানমন্ডিতে আওয়ামী লীগ সভাপতির রাজনৈতিক কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব কথা বলেন।
ওবায়দুল কাদের বলেন, ডোনাল্ড লু বাংলাদেশে আসছেন দুই দেশের সম্পর্ককে আরও এগিয়ে নিতে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে পাঠানো চিঠিতে মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন যা বলছেন, তার বাস্তবায়নটা আমরা দেখব। তবে এখানে কে আসছে, তা নিয়ে আমরা ভাবছি না। যাদের প্রেসিডেন্টের কথা ইসরাইলই শোনে না। আর আমরা যারা জনগণের ভোটে নির্বাচিত সরকার কাকে ভয় পাব? শরিকদের সঙ্গে বিএনপির আলোচনা প্রসঙ্গে আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক বলেন, তারা আন্দোলন করবে, শরিকদের সঙ্গে বসবে। সেখানে আমাদের কোনো বক্তব্য নেই। তারা যদি রাজনৈতিকভাবে এগোতে চায়, তাহলে আমরা রাজনৈতিকভাবেই মোকাবিলা করব। কিন্তু তারা যদি অগ্নিসন্ত্রাসের প্রস্তুতি নিয়ে রাস্তায় নামে, তাহলে সেভাবেই মোকাবিলা করা হবে। আওয়ামী লীগের অপরাধ আকাশচুম্বী ও ক্ষমার অযোগ্য-বিএনপি নেতাদের এমন অভিযোগ প্রসঙ্গে ওবায়দুল কাদের বলেন, আওয়ামী লীগ পালাবে কেন? আওয়ামী লীগের ইতিহাসে পালিয়ে যাওয়ার রেকর্ড নেই। আমাদের শক্তি দেশের জনগণ। রাজনীতি করব না বলে ২০০৭ সালে মুচলেকা দিয়ে বিদেশে পালিয়ে গেছে তাদের (বিএনপির) ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান। যাদের মূল নেতাই পালিয়ে আছে। যারা ২৮ অক্টোবরে বলেছিল আওয়ামী লীগ পালানোর পথ পাবে না। কিন্তু দেখলাম পল্টনের ময়দান থেকে একে একে বিএনপির নেতারা অলিগলি দিয়ে কোথায় পালিয়ে গেল। আবারও আন্দোলনের নামে সন্ত্রাস শুরু করলে তাদের (বিএনপি) পালিয়ে যেতে হবে। বিএনপিকে নিশ্চিহ্ন করতে আওয়ামী লীগের দরকার নেই। তাদের নেতিবাচক রাজনীতিই যথেষ্ট। নির্বাচনে না এসে বিএনপি যে মস্ত বড় ভুল করেছে, তার মাশুল তাদের দিতে হবে।
উপজেলা নির্বাচনে এমপি-মন্ত্রী স্বজনদের প্রার্থিতা নিয়ে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেন, দলীয় নির্দেশ অমান্য করলে তাদের শাস্তি পেতেই হবে। দ্বাদশ জাতীয় নির্বাচনে ৭৩ জন এমপি মনোনয়ন পাননি, ২৫ জন কেবিনেট থেকে বাদ পড়েছেন। শাস্তিটা অনেকভাবেই আসতে পারে। আওয়ামী লীগের নেতৃত্বাধীন ১৪ দলীয় জোট আছে কি না-এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ১৪ দলীয় জোট আছে। জোটনেত্রী শেখ হাসিনা নিজেই বলেছেন, জোট আছে এবং যথাসময়ে আলাপ-আলোচনার জন্য বসবেন।
সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগের যুগ্মসাধারণ সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম, সাংগঠনিক সম্পাদক বিএম মোজাম্মেল হক, মির্জা আজম, এসএম কামাল হোসেন, আফজাল হোসেন, প্রচার ও প্রকাশনাবিষয়ক সম্পাদক আবদুস সোবহান গোলাপ, দপ্তর সম্পাদক বিপ্লব বড়ুয়া, উপদপ্তর সম্পাদক সায়েম খান প্রমুখ।

আরো খবর

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

- Advertisment -
Google search engine

জনপ্রিয় খবর